আজ শনিবার, ১০ আষাঢ় ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, ২৪ জুন ২০১৭ খ্রিস্টাব্দ
ই-পেপার ভিডিও ছবি বিজ্ঞাপন লাইভ টিভি লাইভ রেডিও সকল পত্রিকা যোগাযোগ
শিরোনাম : ভারত-ওয়েস্ট ইন্ডিজ ম্যাচ বৃষ্টির কারণে পরিত্যক্ত       চীনে ভূমিধসে শতাধিক লোক নিখোঁজ       মেসি-নেইমারদের ন্যু ক্যাম্পে মুশফিক       সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের মুখে হাসি ফুটালো ‘ভালোবাসি জামালপুর’       গণমাধ্যমকর্মীদেরকে খালেদার ‘বাদামি খামে’ ঈদ শুভেচ্ছা : বিভ্রান্তিকর পরিস্থিতি তৈরি       রংপুরে সিমেন্ট বোঝাই ট্রাক উল্টে ১৭ শ্রমিক নিহত       এবারের ঘরমুখো যাত্রা স্বস্তিদায়ক: সেতুমন্ত্রী      
কালিয়াকৈর-ফুলবাড়িয়া-মাওনা সড়ক খানাখন্দে দুর্ভোগ
Published : Monday, 19 June, 2017 at 8:56 PM, Count : 79
কালিয়াকৈর-ফুলবাড়িয়া-মাওনা সড়ক খানাখন্দে দুর্ভোগকালিয়াকৈর (গাজীপুর) সংবাদদাতা : গাজীপুরের কালিয়াকৈর উপজেলার অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ব্যস্ততম সড়ক কালিয়াকৈর-ফুলবাড়িয়া-মাওনা সড়কটি। অথচ দীর্ঘদিনের সংস্কারের অভাবে সড়কটির বিভিন্ন স্থানে খানা খন্দের সৃষ্টি হয়ে চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়েছে। তাই এক প্রকার নিরুপায় হয়েই জীবনের ঝুঁকি নিয়েই চলছে সাধারণ মানুষ। অথচ অভিযোগ রয়েছে প্রশাসনের পক্ষ থেকে সড়কটি স্থায়ীভাবে সংস্কারের কোন উদ্যোগই নেই। আর এতে করে জনদূর্ভোগ এখন চরম আকার ধারণ করেছে। জানা গেছে, সড়ক ও জনপথ বিভাগ (সওজ) গাজীপুর এর অধীনে কালিয়াকৈর-ফুলবাড়িয়া-মাওনা সড়কটি। গত প্রায় ২ থেকে ৩ বছর ধরে সড়কটির বেশিরভাগ স্থানেই খানা খন্দের সৃষ্টি হয়েছে। মাঝে মধ্যে প্রশাসনের পক্ষ ও এলাকাবাসির পক্ষ হতে খানা খন্দগুলো জোড়াতালি দিলেও কয়েকদিন যেতে না যেতেই সড়কটি আগের অবস্থানে চলে যায়। এলাকাবাসির অভিযোগ প্রশাসনের খামখেয়ালিপনার কারণেই সড়কটির এমন বেহাল দশার সৃষ্টি হয়েছে। সরেজমিনে গত কয়েকদিন সড়কটি ঘুরে দেখা গেছে, কালিয়াকৈর বাজার বাসস্ট্যান্ড থেকে ফুলবাড়িয়া পর্যন্ত প্রায় ১৮ কিলোমিটার সড়কের প্রায় পুড়োটা জুড়েই খানা খন্দের সৃষ্টি হয়েছে। সড়কের কার্পেটিং উঠে গেছে। এছাড়া একটু বৃষ্টি হলেই খানা খন্দগুলোতে জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়ে নাজেহাল অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে। সড়কের বিভিন্ন স্থানে পানি জমে নালার সৃষ্টি হয়েছে। নেই পানি নিষ্কাশনের কোন ড্রেনেজ ব্যবস্থা। ফলে জীবনের ঝুঁকি নিয়েই সড়কটি দিয়ে চলাচল করছে আশাপাশের শিল্প-কলকারখানার যানবাহন, স্কুল কলেজ ও পেশাজীবি শ্রমিক মানুষজন।  সড়কটির নামাশুলাই বাজার, মেদী আশুলাই বাজার, চেয়ারম্যান বাড়ি, পাইকপাড়া, জাথালিয়া এলাকা, ফুলবাড়িয়া, বেতারকেন্দ্র,  এলাকায় সড়কটির বেহাল দশা সবচেয়ে বেশি। সড়কটির বেশ কয়েকটি পয়েন্টে বাস, পণ্যবাহী  পিকআপ ভ্যান , ট্রাক ও কাভার্ডভ্যান আটকে পড়ে আছে তার চিত্র দেখা গেছে। এছাড়া বিভিন্ন পয়েন্টে খানা খন্দে বৃষ্টির পানিতে জলাবদ্ধতার কারণে ব্যাটারিচালিত অটোরিকশা যাত্রীসহ সড়কে আটকে আছে। ফলে গাড়ি থেকে নেমে পায়ে হেঁটেই গন্তব্যের উদ্দ্যেশ্যে রওনা হচ্ছে যাত্রীরা। এছাড়া গুরুত্বপূর্ণ এ সড়কটি দিয়ে গাজীপুরের মাওনা থেকে কলকাতাগামী যাত্রীবাহী পরিবহন ফাইভ স্টার চলাচল করে থাকে। ফলে সড়কটির গুরুত্ব দিনদিন বেড়েই চলেছে। কিন্তু সড়কের বেহাল দশার কারণে জনগণকে পোহাতে হচ্ছে চরম দুর্ভোগ। গাজীপুর সড়ক ও জনপথ বিভাগ (সওজ) এর কর্মকর্তা বশির আহমেদ মুঠোফোনে বলেন, সড়কটির বেহাল দশার অবস্থা কর্তৃপক্ষকে জানানো হয়েছে। ইতিমধ্যেই সড়কটির মেরামত কাজ চলছে। এদিকে, সওজ এর পক্ষ থেকে সড়কের সংস্কার কাজের কথা বললেও বাস্তবে তার বিন্দুমাত্র চিত্র লক্ষ্য করা যায়নি। এলাকাবাসির দীর্ঘদিনের দাবি সড়কটি অতি দ্রুত যাতে সংস্কার করা হয়। কালিয়াকৈর উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মো: আসাদুজ্জামান আসাদ ক্ষোভ প্রকাশ বলেন, দীর্ঘদিন যাবৎ সড়কটি খানা খন্দে ভরে গেছে। একটু বৃষ্টি হলেই সড়কে পানি জমে যায়। ফলে যানচলাচলে বিঘœ ঘটে। এছাড়া সড়কের বিভিন্ন স্থানে স্কুল কলেজ থাকায় ছাত্র-ছাত্রীদের অনেক কষ্ট করে যাতায়াত করতে হয়। তিনি অভিযোগ করে বলেন, সড়কের এমন বেহাল দশা দেখে সড়ক ও জনপথ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী মো: নাহিন রেজাকে অবহিত করেন। কিন্তু বিষয়টি প্রশাসনকে জানিয়েও কোন লাভ হয়নি। তিনি সরকারের প্রধানন্ত্রী ও সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রীর সু-দৃষ্টি কামনা করেন।
কথা হয় কালিয়াকৈর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মো: নজরুল ইসলামের সাথে। তিনি জানান, সড়কটির অবস্থা খুবই লাজুক। সড়কে চলাচল করতে খুব সমস্যা হয়। এছাড়া একটি গাড়ি আরেকটি গাড়িকে পাশ কাটাতে ঝুকি হয়ে যায়।  ফুলবাড়িয়া ইউপি সদস্য মো: লোকমান হোসেন জানান, কালিয়াকৈর থেকে ফুলবাড়িয়া পর্যন্ত এমন কোন জায়গা নেই যেখানে খানা খন্দের সৃষ্টি হয়নি। সড়কটি দীর্ঘদিন ধরেই নাজেহাল অবস্থা হয়ে রয়েছে।  জনগণের নিকট সড়কটি এখন মৃত্যু ফাঁদে পরিণত হয়েছে।
স্থানীয় এক আওয়ামী লীগ নেতা মো: সফি উদ্দীন সফি জানান, সড়কটির এমন অবস্থা হয়েছে সড়কে যানবাহন তো দূরের কথা পায়ে হেটেঁও চলাচল করতে দুষ্কর হয়ে দাড়িয়েছে। সড়কটি যদি দ্রতি সংস্কার না করা হয় তাহলে জনগণের দূর্ভোগ বেড়েই চলবে।





« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


কাগজে যেমন ওয়েবেও তেমন
সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
সোস্যাল নেটওয়ার্ক
সম্পাদক, প্রকাশক ও মুদ্রাকর : কে.এম. বেলায়েত হোসেন
মেসার্স পিউকি প্রিন্টার্স, নব সৃষ্ট প্লট নং ২০, তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা থেকে মুদ্রিত এবং ৪-ডি, মেহেরবা প্লাজা, ৩৩ তোপখানা রোড, ঢাকা-১০০০ থেকে প্রকাশিত।
বার্তা বিভাগ : ৯৫৬৩৭৮৮, পিএবিএক্স-৯৫৫৩৬৮০, ৭১১৫৬৫৭, ফ্যাক্স : ৯৫১৩৭০৮ বিজ্ঞাপন ও সার্কুলেশন ঃ ৯৫৬৩১৫৭
ই-মেইল : bhorerdk@bangla.net, adbhorerdak@gmail.com,  Developed & Maintenance by i2soft
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি