আজ বৃহস্পতিবার, ৩০ অগ্রহায়ণ ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, ১৪ ডিসেম্বর ২০১৭ খ্রিস্টাব্দ
ই-পেপার ভিডিও ছবি বিজ্ঞাপন লাইভ টিভি লাইভ রেডিও সকল পত্রিকা যোগাযোগ
শিরোনাম : মীরসরাইয়ের উপকূলে আগত অতিথি পাখির নিরাপত্তা জরুরী       হাইড্রোলিক হর্ন উৎপাদন বন্ধের নির্দেশ       বিদেশি লিগের ছাড়পত্র পেলেন না 'কাটার মাস্টার'       সু চির খেতাব প্রত্যাহার করল ডাবলিন সিটি কাউন্সিল       শাকিবের পরেই মোশাররফ করিম       আপন জুয়েলার্সের তিন মালিকের তিন মামলায় জামিন       আজ বার্ষিক সংবাদ সম্মেলন করবেন পুতিন      
পরিবেশ অধিদফতরের অনুমতি মেলেনি
তবুও থেমে নেই মণিরামপুরের সবজি জোন এলাকায় ইটভাটা নির্মাণ
Published : Thursday, 7 December, 2017 at 7:12 PM, Count : 15
তবুও থেমে নেই মণিরামপুরের সবজি জোন এলাকায় ইটভাটা নির্মাণআব্বাস উদ্দীন, মণিরামপুর (যশোর) সংবাদদাতা : পরিবেশ অধিদপ্তরের অনুমতি ছাড়াই মণিরামপুরের “নিরাপদ সবজি জোন’  খ্যাত এলাকায় বিরোধপূর্ণ জমিতে স্থাপিত হচ্ছে ইটভাটা। এরফলে উপজেলার পশ্চিমাঞ্চলে সবজি উৎপাদন খ্যাত হয়াতপুর-শাহপুর মাঠে সবজি উৎপাদন মারাত্বক হুমকির মুখে পড়বে বলে আশংকা করছেন কৃষকরা। ফসলী জমিতে ইটভাটা স্থাপন না হওয়ার জন্য বিভাগীয় কমিশনারের নিকট এলাকাবাসীর দাখিলকৃত আবেদনপত্রে স্থানীয় এমপির ইটভাটা না হওয়ার জন্য ‘আইনগত ব্যবস্থা গ্রহনের অনুরোধ’ থাকা সত্বেও যশোর জেলা প্রশাসকের দেয়া অনুমতিপত্র নিয়েই এ ইটভাটা  স্থাপন করা হচ্ছে বলে জানা গেছে। উপজেলায় প্রায় অর্ধশত ইটভাটা চলমান থাকলেও কিভাবে এমন ফসলী জমিতে ইটভাটা স্থাপনের অনুমতি মিললো-এ নিয়ে জনমনে নানা প্রশ্ন দেখা দিয়েছে। সরেজমিন গতকাল সেখানে যেয়ে দেখা যায়, ইটভাটা স্থাপনের জন্য ইট,মাটি, বালুসহ প্রয়োজনীয় উপকরণ স্তুপ করে রাখা হয়েছে। ভাটা নির্মাণে চিমনিও তৈরী করা হচ্ছে। এসময় সেখানে উপস্থিত ওয়াজেদ আলী নামের ব্যক্তির কাছে জানতে চাইলে তিনি নিজেকে নির্মানাধীন ইটভাটার ম্যানেজার পরিচয় দিয়ে বলেন, গত ৫ নভেম্বর জেলা প্রশাসকের অনুমতি নিয়েই ইটভাটার চিমনি তেরীর কাজ চলছে। পরিবেশ অধিদপ্তরের অনুমতির জন্য আবেদন করা হয়েছেও বলে তিনি জানান। জনৈক সরোয়ার (মুকুল সানা)র নিকট থেকে জমি লীজ নিয়ে আবুল হাসেম মন্টু ইট ভাটাটি নির্মাণ করছেন। এসময় উপস্থিত কিসমত আরা দাবি করেন, তার পৈত্রিক জমিতে জোর করে ভাটা নির্মাণ করা হচ্ছে। এ নিয়ে আদালতে বিচারাধীন ৩টি মামলা রয়েছে। যার কেস নং-৫৭৫/১৭, সিভিল কেস নং-১২/১২ ও প্রিন্ট সংশোধনী কেস নং-৪২৫/১৭। এসকল মামলা নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত ভাটা নির্মান কার্যক্রম বন্ধ রাখতে মালিকপক্ষকে বলা হলেও জোরপূর্বক ইটভাটার নির্মাণ কাজ চলছে বলেও তিনি দাবি করেন।
ইটভাটা নির্মাণ বন্ধে বিভাগীয় কমিশনারের কার্যালয়সহ সংশ্লিষ্ট দপ্তরগুলোতে চলতি বছরের ২৪মে আবেদন করেন এলাকাবাসি। ওই আবেদনপত্রে স্থানীয় এমপি স্বপন ভট্টাচার্য্য ফসলী জমিতে ইটভাটা বন্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহনের সুপারিশও করেন। তারপরও গত ৫ নভেম্বর জেলা প্রশাসক ফসলী জমিতে ইটভাটা নির্মানে প্রাথমিক অনুমতি দিয়েছেন। যার স্বারক নং-৪৫৫। যার সত্যতা নিশ্চিত করেন জেলা প্রশাসকের অফিস সহকারি আব্দুল আলিম। কিন্তু পরিবেশ অধিদপ্তরের অনুমতিপত্র না নিয়েই ওই ফসলী জমিতে ইটভাটা নির্মাণ কার্যক্রম চলছে।
এদিকে উপজেলার সবজি উৎপাদন খ্যাত ওই এলাকায় ইটভাটা স্থাপনে এলাকার প্রান্তিক কৃষকসহ জমি মালিকদের মধ্যে ক্ষোভ দেখা দিয়েছে। উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা সুশান্ত কুমার তরফদার বলেন, কৃষি অফিসের সহযোগীতায় ‘সফল’ নামের একটি এনজিও  ওই এলাকায় ‘নিরাপদ সবজি জোন’ গড়ে তুলেছে। সফলের ম্যানেজার আব্দুল মান্নান শেখ বলেন, ভাটা নির্মাণ হলে ‘নিরাপদ সবজি জোন’ এর ব্যাপক ক্ষতির পাাপাশি তাদের উদ্দেশ্যে ব্যাহত হবে। স্থানীয় কৃষক রামপুর গ্রামের কিসমত আলী, হয়াতপুর গ্রামের ইমন হোসেন, শাহপুর গ্রামের আব্দুল বারিকসহ অনেকেই বলেন, জমিতে সবজি উৎপাদন করেই চলে তাদের সংসার। ৩ ফসলী জমি এলাকায় ভাটা নির্মাণ হলে ফসলের ব্যাপক ক্ষতিসহ পরিবেশের জন্য হুমকি হয়ে দাঁড়াবে। জানতে চাইলে নির্মানাধীন ইটভাটা মালিক আবুল হাশে মন্টু বলেন, জেলা প্রশাসকের অনুমতি নিয়েই ভাটা নির্মাণ করা হচ্ছে। অপর এক প্রশ্নের জবাবে পরিবেশ অধিদপ্তরের অনুমতি নেই বলেও তিনি জানান। জানতে চাইলে পরিবেশ অধিদপ্তরের ভারপ্রাপ্ত উপপরিচালক (যশোর অঞ্চল) মিজানুর রহমান বলেন, ওই ইটভাটা নির্মাণে পরিবশেরে কোন ছাড়পত্র কিংবা অনুমতি দেয়া হয়নি।





« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


কাগজে যেমন ওয়েবেও তেমন
সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
সোস্যাল নেটওয়ার্ক
সম্পাদক, প্রকাশক ও মুদ্রাকর : কে.এম. বেলায়েত হোসেন
মেসার্স পিউকি প্রিন্টার্স, নব সৃষ্ট প্লট নং ২০, তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা থেকে মুদ্রিত এবং ৪-ডি, মেহেরবা প্লাজা, ৩৩ তোপখানা রোড, ঢাকা-১০০০ থেকে প্রকাশিত।
বার্তা বিভাগ : ৯৫৬৩৭৮৮, পিএবিএক্স-৯৫৫৩৬৮০, ৭১১৫৬৫৭, ফ্যাক্স : ৯৫১৩৭০৮ বিজ্ঞাপন ও সার্কুলেশন ঃ ৯৫৬৩১৫৭
ই-মেইল : bhorerdk@bangla.net, adbhorerdak@gmail.com,  Developed & Maintenance by i2soft
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি