আজ সোমবার, ১৪ ফাল্গুন ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০১৮ খ্রিস্টাব্দ
ই-পেপার ভিডিও ছবি বিজ্ঞাপন লাইভ টিভি লাইভ রেডিও সকল পত্রিকা যোগাযোগ
শিরোনাম : চলে গেলেন রংপুরের সাবেক মেয়র ঝন্টু       খালেদার জামিনের আদেশ নথি আসার পর       জনতা ব্যাংকের চেয়ারম্যান হেদায়েত উল্লাহ       কোটা পদ্ধতির সংস্কার দাবিতে নতুন কর্মসূচি ঘোষণা       নবীগঞ্জে অজ্ঞাত কিশোরীর লাশ উদ্ধার       মণিরামপুরে ৪ দিন ধরে শিশু শ্রমিক নিখোঁজ       দুই সিটির উপ-নির্বাচন স্থগিত, রুল নিষ্পত্তির নির্দেশ      
জিসিসি দেশগুলোতে বাজার সুবিধা চেয়েছে বাংলাদেশ
অবকাঠামো খাতে উন্নয়নের জন্য বিদেশি বিনিয়োগ প্রয়োজন
Published : Wednesday, 14 February, 2018 at 8:45 PM, Count : 31
ভোরের ডাক ডেস্ক : সংযুক্ত আরব আমিরাতসহ (ইউএই) গালফ কোঅপারেশন কাউন্সিলের (জিসিসি) অন্যান্য দেশেও শুল্কমুক্ত-কোটামুক্ত বাজার সুবিধা চেয়েছে বাংলাদেশ। গত ৫ ও ৬ ফেব্রুয়ারি আবুধাবীতে অনুষ্ঠিত বাংলাদেশ ও ইউএইর ৪র্থ জয়েন্ট কমিশন বৈঠকে এই অনুরোধ জানানো হয়। এতে বাংলাদেশ প্রতিনিধিদলের নেতৃত্ব দেন অর্থ ও পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী এম এ মান্নান এবং ইউএই প্রতিনিধিদলের নেতৃত্বে ছিলেন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী ড. আনোয়ার গারগেশ।
অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগের (ইআরডি) একজন কর্মকর্তা বাসসকে বলেন, বাংলাদেশ বর্তমানে ইইউ ও অস্ট্রেলিয়াসহ ৩৮ দেশে শুল্ক ও কোটামুক্ত বাজার সুবিধা পাচ্ছে। এ প্রেক্ষিতে ইউএই’র কাছে এই সুবিধার অনুরোধ জানানো হয়। এর জবাবে ইউএই জিসিসি সচিবালয়ে বাংলাদেশকে এ সম্পর্কিত প্রস্তাব পাঠাতে বলেছে। বৈঠকে স্বাক্ষরিত সমঝোতা স্মারক বাস্তবায়ন, দু’দেশের মধ্যে বাণিজ্য সম্প্রসারণে বাণিজ্য প্রতিনিধি বিনিময়ের ব্যবস্থা করতে যৌথ বাণিজ্য কাউন্সিল গঠনে ঐকমত্য হয়। অর্থ ও পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী এম এ মান্নান বলেন, বৈঠকে উভয় দেশ যে কোন ধরনের প্রতিবন্ধকতা নিরসন করে দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্য বৃদ্ধিতে একমত হয়েছে। তিনি আশা পোষণ করেন যে ইউএই বাজারে বাংলাদেশের শুল্ক ও কোটামুক্ত সুবিধার প্রস্তাবে ইউএই সমর্থন জানাবে। বৈঠকে উভয় পক্ষ আইসিটিকে অগ্রাধিকার খাত হিসেবে স্বীকৃতি দিয়েছে।
এদিকে, বাংলাদেশে নিযুক্ত ফিলিপাইনের রাষ্ট্রদূত ভিসেনটি ভিভেনকো টি. বেনডিলো বলেন, বাংলাদেশের অবকাঠামো খাতের উন্নয়নের জন্য এ খাতে বিদেশি বিনিয়োগের খুবই প্রয়োজন এবং এ লক্ষ্যে তিনি অবকাঠামো খাতে বিনিয়োগে এগিয়ে আসার জন্য ফিলিপাইনের উদ্যোক্তাদের প্রতি আহ্বান জানান। তিনি বলেন, বর্তমানে ঢাকা এবং ম্যানিলার মধ্যকার সরাসরি বিমান যোগাযোগ নেই, যা ব্যবসা-বাণিজ্য সম্প্রসারণে কিছুটা হলেও প্রতিবন্ধকতার সৃষ্টি হচ্ছে এবং তা নিরসনে ঢাকা ও ম্যানিলার মধ্যকার সরাসরি বিমান যোগাযোগের উপর গুরুত্বারোপ করেন।
গতকাল মঙ্গলবার ঢাকা চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি (ডিসিসিআই)’র সভাপতি আবুল কাসেম খান এবং পরিচালনা পর্ষদের সদস্যবৃন্দের সাথে বাংলাদেশে নিযুক্ত ফিলিপাইনের রাষ্ট্রদূত ভিসেনটি ভিভেনকো টি. বেনডিলো ডিসিসিআইতে সাক্ষাৎ করেন। ঢাকা চেম্বারের সভাপতি আবুল কাসেম খান বলেন, ফিলিপাইন খুবই সফলতার সাথে সারা পৃথিবীতে দক্ষ জনবল পাঠিয়ে থাকে এবং বাংলাদেশের মানবসম্পদের দক্ষতা বৃদ্ধিতে প্রতিষ্ঠান স্থাপনে বাংলাদেশ ও ফিলিপাইন যৌথ উদ্যোগ গ্রহণের উপর জোরারোপ করেন। ডিসিসিআই’র সভাপতি বলেন, ফিলিপাইন প্রতিবছর ইলেকট্রনিক্স পণ্য, যোগাযোগ মেশিনারিজ, রড ও স্টিল, টেক্সটাইল ফেব্রিক্স, কেমিক্যাল ও প্লাস্টিক প্রভৃতি পণ্য প্রচুর পরিমাণে আমদানি করে এবং এক্ষেত্রে বাংলাদেশ হতে এ সব পণ্য আমদানির জন্য ফিলিপাইনের ব্যবসায়ীদের প্রতি আহ্বান জানান।
ফিলিপাইনের রাষ্ট্রদূত ভিসেনটি ভিভেনকো টি. বেনডিলো বলেন, ফিলিপাইনের উদ্যোক্তাদের বাংলাদেশে তথ্য-প্রযুক্তি, বিজনেস প্রসেস ম্যানেজমেন্ট, পর্যটন ও ট্রান্সপোটেশন, কৃষি, মৎস এবং খাদ্য প্রক্রিয়াজাতকরণ খাতে বিনিয়োগে প্রচুর সম্ভাবনা রয়েছে। তিনি আরো বলেন, প্রযুক্তিগত জ্ঞানের আদান-প্রদান ও গবেষণা কার্যক্রম পরিচালনা এবং পর্যটন খাতের উন্নয়ন ফিলিপাইন ও বাংলাদেশি উদ্যোক্তাবৃন্দ যৌথভাবে কাজ করার যথেষ্ট সুযোগ রয়েছে। রাষ্ট্রদূত বলেন, বাংলাদেশি ব্যবসায়ীদের এশিয়ান অঞ্চলে পণ্য সরবরাহ ও ব্যাণিজ্য সম্প্রসারণে ফিলিপাইন একটি গুরুত্বপূর্ণ গেটওয়ে হিসেবে ভূমিকা রাখতে পারে। তিনি জানান, ফিলিপাইনে বায়োটেকনোলজি, ফটোনিক্স, ন্যানোটেকনোলজি খাতে বিনিয়োগ করলে বিশেষ প্রণোদনা প্রদান করা হয়।
ডিসিসিআই সহ-সভাপতি রিয়াদ হোসেন, পরিচালক হোসেন এ সিকদার, হুমায়ুন রশিদ, খন্দ. রাশেদুল আহসান, মো. আলাউদ্দিন মালিক, ইঞ্জিঃ মো. আল আমিন, এস এম জিল্লুর রহমান, ওয়াকার আহমদ চৌধুরী এবং মহাসচিব এএইচএম রেজাউল কবির এ সময় উপস্থিত ছিলেন।  









« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


কাগজে যেমন ওয়েবেও তেমন
সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
সোস্যাল নেটওয়ার্ক
সম্পাদক, প্রকাশক ও মুদ্রাকর : কে.এম. বেলায়েত হোসেন
মেসার্স পিউকি প্রিন্টার্স, নব সৃষ্ট প্লট নং ২০, তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা থেকে মুদ্রিত এবং ৪-ডি, মেহেরবা প্লাজা, ৩৩ তোপখানা রোড, ঢাকা-১০০০ থেকে প্রকাশিত।
বার্তা বিভাগ : ৯৫৬৩৭৮৮, পিএবিএক্স-৯৫৫৩৬৮০, ৭১১৫৬৫৭, ফ্যাক্স : ৯৫১৩৭০৮ বিজ্ঞাপন ও সার্কুলেশন ঃ ৯৫৬৩১৫৭
ই-মেইল : bhorerdk@bangla.net, adbhorerdak@gmail.com,  Developed & Maintenance by i2soft
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি